+88 01974 272996 Contact@cttg.com.bd

Login

Sign Up

After creating an account, you'll be able to track your payment status, track the confirmation and you can also rate the tour after you finished the tour.
Username*
Password*
Confirm Password*
First Name*
Last Name*
Email*
Phone*
Country*
* Creating an account means you're okay with our Terms of Service and Privacy Statement.

Already a member?

Login
+88 01974 272996 Contact@cttg.com.bd

Login

Sign Up

After creating an account, you'll be able to track your payment status, track the confirmation and you can also rate the tour after you finished the tour.
Username*
Password*
Confirm Password*
First Name*
Last Name*
Email*
Phone*
Country*
* Creating an account means you're okay with our Terms of Service and Privacy Statement.

Already a member?

Login

স্বপ্নের শহর দার্জিলিং ও মিরিক ভ্রমন।

Price
From৳12,999
Price
From৳12,999
January 28, 2020

Proceed Booking

Save To Wish List

Adding item to wishlist requires an account

230
4 Days
Availability : Sep 18’ - Dec 18’
কল্যানপুর বাস কাউন্টার ঢাকা
কল্যানপুর বাস কাউন্টার ঢাকা
Min Age : 18
Max People : 30
Tour Details

স্বপ্নের মতো শহর ,গল্প কবিতা আর গানে বাঙ্গালী লেখকরা ফুটিয়ে তুলেছে দার্জিলিং এর সৌন্দর্য্য । এখানে পাহাড় আর মেঘের যেন মিতালী চলে সারাক্ষণ ,প্রায় সাত হাজার ফুট উঁচুতে অবস্হিত দার্জিলিং যেন পর্যটক স্বর্গ আর হবেই না কেন দার্জিলিং এর পাহাড়ী সৌন্দর্য্য পর্যটকদের মাতিয়ে রাখে সারাক্ষণ সেজন্য পর্যটকরাও ছুটে আসে বার বার দার্জিলিং এর টানে ।দার্জিলিং এর সেই সৌন্দর্য্যের টানে আমরাও এবার ছুটবো দার্জিলি এর উদ্দেশ্যে। 

দার্জিলিং ট্যুরের প্রধান ফ্যাক্ট হচ্ছে ভিসা। আপনাকে অবশ্যই চ্যাংড়াবান্ধা বর্ডার দিয়ে ভিসা করা থাকতে হবে। আপনি যদি মনে করেন ভিসার জন্য ই-টোকেন কিংবা লাইনে দাড়াতে চান না তাহলে চিন্তার কোন কারন নাই আমরাই অল্প খরচে ভিসা করিয়ে দিবো। আর যাদের ভিসা অন্য পোর্ট দিয়ে করা আছে তাদের ক্ষেত্রে অল্প খরচে চ্যাংড়াবান্ধা পোর্ট এড করে দিবো। তাহলে আর চিন্তা কি দ্রুত সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলুন আর আমাদের সাথে ঘুরে আসুন মেঘ ও পাহাড়ের রাজ্য স্বপ্নের দার্জিলিং। 

Departure & Return Location

রাত ৮ঃ৩০ এ কল্যানপুর বাস কাউন্টার থেকে বুড়িমারী বর্ডারের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু।  (Google Map)

Departure Time

রাত ৬ঃ৩০ যাত্রা শুরুর ২ ঘন্টা পূর্বে পৌছাতে হবে।

Price Includes

  • ঢাকা-বুড়িমারী - ঢাকা (এসি বাসের টিকিট)
  • সকল ধরনের ট্রান্সপোর্ট খরচ
  • ২১ তারিখ সকাল থেকে ২৪ তারিখ বিকেল পর্যন্ত প্রতি দিন ৩ বেলা খাবার খরচ।
  • সকল ধরনের এন্ট্রি ফি।
  • হোটেল খরচ (কাপলদের জন্য বাড়তি ১০০০ টাকা করে প্রতিজন দিতে হবে)।
  • একজন হোষ্ট যিনি পুরো ট্যুরে সার্বক্ষনীক সাথে থাকবেন।

Price Excludes

  • কোন ব্যাক্তিগত খরচ।
  • ঔষধের খরচ।
  • যাওয়া আসা বাসের মধ্যবিরতিতে খাবারের খরচ।
  • ভিসা ফি+ ট্র্যাভেল ট্যাক্স+ ভিসা প্রসেসিং ফি।
  • বর্ডারের স্পিড মানি।

Complementaries

  • ছাতা
  • প্রথমে প্রয়োজনীয় সকল ডকুমেন্টস চেক করে নিতে হবে
  • পাসপোর্ট, জাতীয় পরিচয়পত্র সহ সকল প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ৩-৪ কপি করে নিতে হবে
  • কাপড় যত কম নেওয়া যায় তত ভালো।
What to Expect

#খাবার ম্যানুঃ
২১ তারিখ সকালঃ
বুড়ির হোটেলে-ভাত, মুরগির মাংস, আলুর ভর্তা, ডাল, চা
২১ তারিখ দুপুরঃ
ভাত, মুরগির মাংস, সবজি, ডাল
২১ তারিখ রাতঃ
ভাত, মুরগির মাংস/গরুর মাংস/মাছ, সবজি, ডাল
২২ তারিখ সকালঃ
পরটা, সবজি/ডিম, চা
২২ তারিখ দুপুরঃ
ভাত, মুরগির মাংস/গরুর মাংস/মাছ, সবজি, ডাল
২২ তারিখ রাতঃ
ভাত, মুরগির মাংস/গরুর মাংস/মাছ, সবজি, ডাল২
২৩ তারিখ সকালঃ
আলুর পরটা, সবজি, চা
২৩ তারিখ দুপুরঃ
বিরিয়ানী
২৩ তারিখ রাতঃ
ভাত, খাসির মাংস, সবজি, ডাল
২৪ তারিখ সকালঃ
সবজি খিচুরী, চা
২৪ তারিখ দুপুরঃ
ভাত, মাছ ভাজা/মুরগীর মাংস, সবজি, ডাল, চা 
২৪ তারিখ রাতের খাবার থাকবেনা কিন্তু বিকেলে হালকা স্ন্যাক্স থাকবে।

যে বিষয়গুলো অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবেঃ

১। স্থানিয়দের সাথে কোনভাবেই তর্কে যাওয়া যাবে না।
২। ভ্রমনের সময় কোন ধরনের মাদকদ্রব্য বহন করা যাবে না।
৩। মজা আমরা অবশ্যই করব তবে সেটা যেন সীমা অতিক্রম না করে। কোন ধরনের অশ্লীলতা বরদাস্ত করা হবে না।
৪। দলগত ভাবে ঘুরে বেড়াবো।
৫। হোটেলে শেয়ার ব্যাসিস সবাইকে মিলেনিশে থাকতে হবে। মেয়েদের জন্য আলাদা রুমের ব্যাবস্থা থাকবে। (প্রতিরুমে ৩জন)
৬। খাবারের মান যতটা ভাল করা যায় চেষ্টা করা হবে।
৭। পরিস্থিতির উপর নির্ভর করে যেকোন সিদ্ধান্ত সবার সাথে আলোচনা সাপেক্ষে নেওয়া হবে এবং সেক্ষেত্রে এডমিনের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হিসেবে গন্য হবে।
৮। যত্রতত্র ময়লা না ফেলে একটা নির্দিস্ট স্থানে ফেলব।
৯। সর্বোপরি সবার সহযোগিতা ও আন্তরিকতায় ট্যুর সুন্দর ও সাফল্যমন্ডিত করা সম্ভব আশা করি সবাই করবেন।

#আমাদের সাথে কেন ভ্রমন করবেন???
এখন ব্যাঙ্গের ছাতার মত ট্রাভেল এজেন্সী গড়ে উঠেছে যাদের নুন্যতম কোন অভিজ্ঞতা নেই এই সেক্টরে। আর তাদের সাথে ট্যুরে গিয়ে ঘটছে নানাধরনের ঘটনা যা ট্যুরের পুরো প্ল্যানটাই নষ্ট করে দেয়। অত্যন্ত নিম্নমানের হোটেল এবং অব্যাবস্থাপনার জন্য ট্যুর হয়ে উঠে দুর্বিষহ। অতিরিক্ত মুনাফার জন্য প্রতিটি পদক্ষেপে তাদের নিম্নমানের সার্ভিস দেওয়ার চেষ্টা চলে।প্রতিটি ক্ষেত্রে সার্ভিসের সর্বোচ্চ দেওয়ার চেষ্টা থাকে। আমাদের বিগত ট্যুরের রিভিউ দেখলেই বুঝতে পারবেন।

#আমাদের ট্যুর কেন অন্যদের থেকে আলাদা তার কিছু কারন হলোঃ 
১। ট্যুর চলাকালীন একজন হোষ্ট সার্বক্ষনীক গ্রুপের সাথে থাকেন যার ফলে কারো কোন সমস্যা হলে সাথে সাথে তার সমাধানের চেষ্টা করা হয়।
২। আমাদের প্রতিটি ট্যুর অত্যন্ত প্ল্যান মাপিক হয়ে থাকে। সবক্ষেত্রে পরিকল্পনামাপিক লোকাল ট্রান্সপোর্ট, হোটেল সবকিছুর ব্যাবস্থা আগ থেকেই রেডি করা থাকে যার কারনে কোথাও কোন ধরনের ভোগান্তি পোহাতে হয় না।
৩। স্ট্যান্ডার্ড মানের হোটেল এর ব্যাবস্থা করা হয়ে থাকে।
৪। ট্যুর প্ল্যান এ যেসকল স্পট এর কথা উল্লেখ আছে প্রতিটা স্পট কাভার করা হয়।
৫। ট্যুর মেম্বারদের ঘুরাঘুরির ক্ষেত্রে যথেষ্ট সময় দেওয়া হয়।
৬। একটি সুন্দর ও আনন্দময় ট্যুরের জন্য আপ্রান চেষ্টা করা হয়।
৭। কোন ধরনের হিডেন চার্জ নেই।
৮। নিরাপত্তার ক্ষেত্রে ১০০% নজর দেওয়া হয়।
৯। সোজাকথা আপনি আপনার বন্ধুবান্ধব কিংবা পরিবারের সাথে ট্যুরে যেভাবে করতেন আমাদের ট্যুরগুলো সেভাবেই হয়ে থাকে।
মনে রাখবেন সস্তা ট্যুর কখনই ভালো হয়না। আমাদের এই ট্যুর প্ল্যান আজ অবদি কোন এজেন্সী চিন্তাও করে নাই। ইনশা আল্লাহ আশা করছি এই ট্যুরটি আপনার জন্য স্মরনীয় একটি ট্যুর হবে।

মৌখিক কনফার্মেশন গ্রহনযোগ্য নয়, অগ্রিম টাকা পাঠিয়ে কনফার্ম করতে হবে।

আপাতত বুকিং এর লাস্ট আসন খালি থাকা সাপেক্ষে।
এই ট্রিপ এ সবাই যেতে পারবেন (ছেলে/মেয়ে/ ফ্যামিলি/কাপল)।

বুকিং সিরিয়াল অনুসারে বাস, লোকাল ট্রান্সপোর্ট ও হোটেল রুম সাজানো হবে। এই ক্ষেত্রে কোন ধরনের উজর আপত্তি চলবেনা।

  • জাপানিজ পিস টেম্পল
  • জাপানিস সিস প্যাগোডা
  • রক গার্ডেন
  • হিমালয়ান মাউন্টেনারিং ইন্সটিটিউট
  • হিমালয়ান রেল স্টেশন
  • টি গার্ডেন
  • মিউজিয়াম
  • চিড়িয়াখানা
  • ক্যাবল কার (রোপওয়ে)
  • কাঞ্চনজঙ্ঘা
  • টয় ট্রেন
  • টাইগার হিল
  • বাতাসিয়া লুপ
  • ঘুম মন্সট্রি
  • ঘুম স্টেশন
  • তেনজিং রক
  • মিরিক লেক

আপনার প্যকেজটি তিনটি উপায়ে বুকিং কনফার্ম করতে পারেনঃ

১। সরাসরি অফিসে টাকা জমা দিয়ে বুকিং কনফার্মঃ
অফিস ঠিকানাঃ
১২১, আজিমপুর রোড, লালবাগ, ঢাকা
নীচতলা।
(ভিকারুন্নেসা আজিমপুর ব্রাঞ্চকে ক্রস করে কিছুদূর সামনে এগিয়ে গেলেই হাতের বাপাশে যে গলি সেটা দিয়ে প্রবেশ করে ১২১ নাম্বার বিল্ডিং এর নীচতলায় অফিস, আজিমপুর কবরস্থানের মেইন গেইটের বিপরীত পাশের গলি)

২। ব্যাংক ডিপোজিট এর মাধ্যমে বুকিং কনফার্মঃ
#DBBL Bank Account:
Account Name: The Travel Group
Account No: 126.110.30123

৩। বিকাশ কিংবা রকেট এর মাধ্যমে বুকিং কনফার্মঃ
01822202323 (Bkash-Personal)
01711871907 (Bkash Personal)
016111023231 (Rocket)

#ভিসা সংক্রান্ত তথ্যঃ
দার্জিলিং ভ্রমনের জন্য আপনাকে অবশ্যই চ্যাংড়াবান্ধ্যা বর্ডার দিয়ে ভিসা করা থাকতে হবে। যাদের এই পোর্ট এ ভিসা করা আছে তারা দ্রুত বুকিং মানি পাঠিয়ে আপনার প্যাকেজটি কনফার্ম করে ফেলুন। আর যাদের ভিসা করা নাই তাদের ভিসা প্রক্রিয়ার খেত্রে আমরা সহযোগীতা করবো।

#ভারতীয় ভিসা করার জন্য যেসকল কাগজপত্র লাগবেঃ

১। মিনিমাম ৬ মাস মেয়াদি পাসপোর্ট
২। বর্তমান বাসার বিদ্যুৎ বিলের কপি/গ্যাস বিলের কপি/পানি বিলের কপি/টেলিফোন বিলের কপি
৩। ব্যাংক স্টেটমেন্ট (মিনিমাম ২০০০০ টাকা থাকতে হবে)। ব্যাংক একাউন্ট না থাকলে ডলার এন্ড্রোসমেন্ট (১৫০ ডলার)
৪। চাকুরীজিবীদের খেত্রে NOC, ব্যাবসায়ীদের খেত্রে ট্রেড লাইসেন্স, স্টুডেন্টদের খেত্রে স্টুডেন্ট আইডি কার্ড, সরকারি কর্মকর্তার খেতে GO.
৫। জাতীয় পরিচয়পত্র কিংবা জন্মনিবন্ধনের কপি।
৬। ২*২ সাইজের ছবি।
৭। পুরাতন পাসপোর্ট থাকলে সেটাও সাথে জম আদিতে হবে।
৮। ভিসা আবেদন ফর্ম।

#আমরা ফিসা প্রসেসিং করে দিবো, সেক্ষেত্রে প্রসেসিং ফি লাগবেনা।

এটি একটি বাংলাদেশের প্রথম শ্রেনির দি ট্রাভেল গ্রুপ (TTG)এর সত্তাধীকারি ট্রাভেল গাইড।।

Itinerary

Day 1২০ তারিখঃ

রাত ৬ঃ৩০ এ কল্যানপুর বাস কাউন্টার থেকে বুড়িমারী বর্ডারের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু।

Day 2২১ তারিখঃ

সকালে বর্ডারে পৌছে সকালের নাস্তা সেরে নিবো। বর্ডারের সকল ফর্মালিটিজ শেষ করে শিলিগুড়ির উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু। বর্ডারে ইমিগ্রেশান এ বেশ কিছু সময় লাগবে। শিলিগুড়ি পৌছে ফ্রেশ দুপুরের খাবার খাবো। খাবার শেষে টাটা সুমোতে করে দার্জিলিং এর উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু। শিলিগুড়ি থেকে দার্জিলিং যাওয়ার রাস্তাটাই হবে আপনার জন্য বিস্ময়ের কিছু যা ট্যুর শেষ এ মনে রাখবেন। দার্জিলিং পৌছে পুর্ব নির্ধারিত হোটেল এ চেক ইন। হোটেল এ চেক ইন হয়ে ফ্রেশ হয়ে রাতের খাবারের উদ্দেশ্যে বের হয়ে যাবো। রাতের খাবার শেষ এ আবারো হোটেলে ফিরে আসবো।

Day 3২২ তারিখঃ

খুব ভোরে ঘুম থেকে উঠে পুর্ব নির্ধারিত গাড়িতে করে সাইট সিয়িং এ বের হবো। প্রথমে চলে যাবো জাপানিজ টেম্পল এ। সেখান থেকে চলে যাবো রক গার্ডেন এ। যাওয়ার পথটা কেমন হবে সেটা না হয় গিয়েই দেখবেন। রক গার্ডেন ঘুরে চলে আসবো শহরে। দুপুরের খাবার শেষ করে একে একে হিমালয়ান মাউন্টেনিয়ারিং ইন্সটিটিউট, জুওলজিক্যাল পার্ক, রোপওয়ে, তেনজিং রক ঘুরে দেখবো। সন্ধ্যার মধ্যে হোটেলে ফিরবো। সন্ধ্যাটা নিজের মত কাটাবো, চাইলে নিজের মত শপিং করতে পারেন। রাতের খাবার খেয়ে দ্রুত ঘুমিয়ে পড়বো কারন খুব ভোরে ঘুম থেকে উঠতে হবে।

Day 4২৩ তারিখঃ

ভোর ৪টা নাগাদ গাড়ি হোটেল এর সামনে চলে আসবে। এবারের গন্তব্য টাইগার হিল। টাইগার হিল থেকে সকালের সুর্যোদয় ও বহুল প্রতিক্ষীত কাঞ্চনজঙ্গা দেখবো। টাইগার হিল এ সবাইকে কফি দেওয়া হবে। তারপর চলে আসবো বাতাসিয়া লুপ, সেখান থেকে চলে যাবো ঘুম মন্সট্রি, ঘুম স্টেশন। টয় ট্রেন দেখে সকালের নাস্তা সেরে হোটেল এ ফিরে আসবো।বিকেলটা সবাই নিজেদের মত ঘুরে বেড়াবেন, চাইলে শপিং করতে পারেন।

Day 5২৪ তারিখঃ

খুব সকালে জীপে করে মিরিকের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু। মিরিকেই সকালের নাস্তা সেরে নিবো। মিরিক এ কিছুক্ষন কাটিয়ে শিলিগুড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দিবো। শিলিগুড়ি পৌছে দুপুরের খাবার খেয়ে জীপে করে বর্ডারের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু। বর্ডারের সকল ফর্মালিটিজ শেষ করে সন্ধ্যার বাসে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু। মুলত এখানেই ট্যুরের সমাপ্তি।

Map
Photos